লোকসভার ধাক্কার পর মমতার দাবি, ‘ব্যালট ফেরাও’

0
71

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী এবং তৃণমূল কংগ্রেসের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ভারতের আগামীর নির্বাচনগুলো ইভিএমের পরিবর্তে ব্যালটে করার দাবি তুলেছেন। একই সঙ্গে তিনি আরও বলেছেন, এই রাজ্যের পঞ্চায়েত এবং পৌরসভা ও পৌর করপোরেশনের নির্বাচন হবে ব্যালটে।

আজ রোববার তৃণমূলের ডাকে কলকাতার ধর্মতলায় তৃণমূলের শহীদ দিবস উপলক্ষে আয়োজিত এক বিশাল সমাবেশ থেকে এই ডাক দেন তিনি।

১৯৯৩ সালের ২১ জুলাই তৎকালীন যুব কংগ্রেস নেত্রী মমতার নেতৃত্বে রাজ্য সচিবালয় মহাকরণ অভিযানকালীন পুলিশের গুলিতে ১৩ জন নিহত হন । এই দিনকে স্মরণ করে প্রতিবছর ২১ জুলাই তৃণমূল কংগ্রেস শহীদ দিবস পালন করে আসছে রাজ্যজুড়ে। এবার এই শহীদ দিবস ২৬ বছর পার করেছে। এবার অবশ্য লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির কাছে মমতার ব্যাপক পরাজয়ের পর দলকে গুছানোর প্রত্যয় নিয়ে আয়োজন করা হয় এই মহাসমাবেশের।

সমাবেশে মমতা বলেন, বিজেপির সাম্প্রদায়িকতার মুখোশ খুলে গেছে। দেশ শাসনে অযোগ্য হয়েছে তারা। কিন্তু সাম্প্রদায়িকতার স্থান এই বাংলায় নেই। কেন্দ্রের বিজেপি সরকার পাঁচ বছর দেশ চালাতে পারবে না। দুবছরও চলতে পারবে না।

মমতা বলেন, এবার বিজেপি ফিরিয়ে দিক কালোটাকা। মমতা বলেছেন, ভারতে নোটবন্দীর সময় যে টাকা মেরেছে বিজেপি, এবার সেই টাকা ফিরিয়ে দিক । তিনি এই লক্ষ্যে দলীয় নেতা-কর্মীদের ব্ল্যাকমানি ফিরিয়ে দেওয়ার আন্দোলন শুরু করার ডাক দিয়েছেন। তিনি এ কথাও বলেছেন, চোরেদের সর্দার, ডাকাতদের সর্দার বিজেপি এবার ব্ল্যাকমানি ফিরিয়ে দিক।

সিপিএম ও কংগ্রেসের প্রবল সমালোচনা করে মমতা বলেন, ‘বাংলায় বিজেপির পরগাছা কংগ্রেস। সিপিএমের হার্মাদরা এখন বিজেপির ওস্তাদ। ওরা তিন পার্টি মিলে এখন কাজ করছে তৃণমূলের বিরুদ্ধে। আজ ভারতে গণতন্ত্র বিপন্ন।’

শহীদ দিবস উপলক্ষে তৃণমূলের বিশাল সমাবেশের একটি অংশ। ছবি: ভাস্কর মুখার্জীমমতা বলেন, ‘গত লোকসভা নির্বাচন এখনো আমাদের কাছে রহস্য হয়ে রয়েছে। আমরা ভোটে স্বচ্ছতা আনতে তাই ইভিএমের পরিবর্তে ব্যালটে ভোট করার দাবি তুলেছি। যুক্তরাষ্ট্রে ইভিএমে ভোট হয় না। ভোট হয় না জার্মানি ও ফ্রান্সেও। তাই আমরা চাই ইভিএমের পরিবর্তে ব্যালটে ভোট করাতে।’

মমতা দাবি তোলেন, ‘গণতন্ত্র ফেরাও, ব্যালট ফেরাও।’ বলেন, বিজেপি সরকার আমাদের যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামোর ওপর আঘাত হানছে। তাই ১৮টি আসনে বিজেপি জয়লাভ করলেও ভোটসংখ্যার নিরিখে আমরা এগিয়ে রয়েছি এই রাজ্যে। বলেন, ‘আগামী ২০২১ সালে পরবর্তী রাজ্য বিধানসভার নির্বাচনে তৃণমূল ফের ক্ষমতায় আসবে। মানুষ বিজেপিকে চায় না, চায় তৃণমূলকে।’

মমতা প্রশ্ন করেন, ‘এবারের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি এত টাকা কোথায় পেল ? কোথা থেকে এল এই টাকা? আগামীতে মানুষ ইঞ্চিতে ইঞ্চিতে এর হিসাব বুঝে নেবে। ক্ষমা করবে না।’

কংগ্রেস ও সিপিএমের উদ্দেশে মমতা বলেন, ওরা আগে সাইনবোর্ড বাঁচাক।

বাংলায় বিজেপিকে হটানোর জন্য তৃণমূলের কর্মীদের ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়ার ডাক দেন তৃণমূলের নেত্রী। তিনি বলেন, ‘তৃণমূল ছিল, তৃণমূল আছে আর এই তৃণমূল এই বাংলায় থাকবে। তাকে হটানো এত সহজ নয়।’

মমতা এদিন আরও বলেন, ‘এবার আমাদের রুখে দাঁড়াতে হবে বিজেপির বিরুদ্ধে। বিজেপি ভাঙা শুরু হয়েছে। আজ এই সাম্প্রদায়িক বিজেপির বিরুদ্ধে আমাদের তাই ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here